অনলাইনে ভর্তিতে অনাগ্রহ বড় বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর

দেশের বড় চার পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় এবং জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় নিজস্ব প্রক্রিয়ায় ভর্তি কার্যক্রম পরিচালনা করতে পারে।

বিশ্ববিদ্যালয়গুলো বিশ্ববিদ্যালয়গুলো পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, ভর্তি প্রক্রিয়া তারা এখনও চূড়ান্ত কোনো সিদ্ধান্ত নেয়নি। তবে এ বিষয়ে তারা দ্রুত সিদ্ধান্ত নিতে পারে।

আজ মঙ্গলবার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ডিনস সভায় নিজস্ব প্রক্রিয়ার মাধ্যমে ভর্তি প্রক্রিয়া সম্পন্ন করবে বলে সিদ্ধান্ত হয়।

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় উপাচার্য প্রফেসর ড. এম আব্দুস সোবহান বলেন, আগামী ২৭ অক্টোবর বিশ্ববিদ্যালয় একাডেমিক কাউন্সিলের সভা আহ্বান করা হয়েছে। ভর্তি পরীক্ষা কোন প্রক্রিয়া হবে সে বিষয়ে একাডেমিক কাউন্সিলের সিদ্ধান্ত হবে।

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত রেজিস্ট্রার অধ্যাপক এস. এম মনিরুল হাসান বলেন, আমাদের ভর্তিপরীক্ষার ব্যাপারে এখনও কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি। আগামী শনিবার ডিনস কমিটির মিটিং হবে। সেখানে এ ব্যাপারে সিদ্ধান্ত হবে।

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য (প্রশাসন) অধ্যাপক মো. আমির হোসেন বলেন, ‘ভর্তি পরীক্ষা কোন পদ্ধতিতে নেয়া হবে, সেটা এখনো আলোচনা করা হয়নি। তবে শিগগিরই আলোচনা করে সিদ্ধান্ত জানানো হবে।

নূর-মামুনদের গ্রেফতারের দাবিতে অনশনে অসুস্থ সেই ছাত্রী !

ছাত্র অধিকার পরিষদের আহ্বায়ক হাসান আল মামুন ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদের (ডাকসু) সাবেক ভিপি নুরুল হক নূরকে গ্রেফতারের দাবিতে অনশনে বসা সেই ছাত্রী অসুস্থ হয়ে পড়েছেন।

টানা অনশনে থেকে শুক্রবার রাতে দুর্বল হয়ে পড়েন ওই ছাত্রী। তাকে হাসপাতালে নেওয়ার কথা বললেও তিনি যেতে রাজি হননি।

পরে তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ ছাত্রলীগের সভাপতি ডা. শেখ মো. আল আমিনের নেতৃত্বে একটি চিকিৎসক টিম সেখানে প্রাথমিক চিকিৎসা দেন। তাকে স্যালাইন দেওয়া হয়েছে।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের রাজু ভাস্কর্যের পাদদেশে অনশন করছেন এই শিক্ষার্থী। শনিবারও অনশন অব্যাহত রেখেছেন।

ওই ছাত্রী সংবাদমাধ্যমকে জানান, অনশনের কারণে শারীরিকভাবে কিছুটা দুর্বল হয়ে পড়েছেন৷ কিন্তু আসামিরা গ্রেফতার না হওয়া পর্যন্ত অনশন ভাঙবেন না৷

বৃহস্পতিবার রাত ৯টা থেকে অনশন শুরু করেন ওই ছাত্রী। তখন তার সঙ্গে একাত্মতা পোষণ করে আরো বেশ কয়েকজন ছাত্রী সেখানে বসে পড়েন।

অনশনের শুরুতে ওই ছাত্রী বলেন, আসামিদের বিরুদ্ধে মামলা করেছি দীর্ঘদিন হয়ে যাচ্ছে। কিন্তু এরই মধ্যে মামলার অন্যান্য আসামিদের গ্রেফতার করা হলেও নূর-মামুনদের গ্রেফতার করা হচ্ছে না। তারা দিব্যি ঘুরে বেড়ালেও পুলিশ না কি তাদের খুঁজে পাচ্ছে না। প্রভাবশালী হওয়ার কারণে কি তাদের গ্রেফতার করা হচ্ছে না? নাকি জনপ্রিয়তা আছে বলে তাদের ছাড় দেওয়া হচ্ছে। আসামিদের গ্রেফতার করা পর্যন্ত আমি আমার অনশন চালিয়ে যাবো।

এর আগে ২১ সেপ্টেম্বর রাজধানীর লালবাগ থানায় হাসান আল মামুনকে প্রধান আসামি করে ধর্ষণ মামলা দায়ের করেন সেই ছাত্রী।

ওই মামলার অন্যান্য আসামিরা হলেন- নুরুল হক নূর, নাজমুল হাসান সোহাগ, সাইফুল ইসলাম, নাজমুল হুদা, আব্দুল্লাহ হিল বাকী।

শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খোলার কথা ভাবছে মন্ত্রণালয় !

শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খুলে দেওয়ার ব্যাপারে চিন্তা-ভাবনা চলছে বলে জানিয়েছেন মন্ত্রিপরিষদ সচিব খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম। সোমবার সচিবালয়ে মন্ত্রিসভার বৈঠকের বিষয়ে জানাতে এক ব্রিফিংয়ে সাংবাদিকদের এ কথা বলেন তিনি ।

মন্ত্রিপরিষদ সচিব বলেন, ‘লেটেস্ট যে সার্কুলার, তাতে সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়ের ওপর ছেড়ে দিয়েছি। কারণ এখন আর সেন্ট্রালি অত বড় এমবার্গো দেওয়ার মত অবস্থা নেই।’

তিনি আরো বলেন, ‘১০/১২ দিন আগে জার্মানিতে কথা বললাম, তারা সব ওপেন করে দিচ্ছে, যদিও (করোনা ভাইরাস) ধরা পড়ছে। কিন্তু কী করবে, কত দিন আর বন্ধ রাখা যাবে?’

সচিব বলেন, ‘আমরা এখন বিষয়টি সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়ের ওপর দিয়ে দিয়েছি। তারা চিন্তা-ভাবনা করছে কী করা যায়। এর আগে কওমি মাদ্রাসাগুলো খুলে দেওয়া হয়েছে।’